tomatto-new
40 ৳ 
  • July 20, 2021 12:14 pm
  • Dhaka, Bangladesh
  • 539 views
New Top Featured

Red Cherry Tomato Seeds (15 Pcs) Price BD – Garden.Com.BD

সব ধরণের মাটিতে চেরী টমেটোর চাষ করা যায়। তবে দো-আশ ও বেলে দো-আঁশ মাটি বেশি উপযোগী। সাধারণত ২০ থেকে ২৫ ডিগ্রী সেলসিয়াস তাপমাত্রায় গাছে টেমেটো ভাল জন্মে। তাই বাংলাদেশে শীতকালে চেরী টমেটো চাষের জন্য উপযুক্ত সময়।
জমি তৈরি ও চারা রোপণঃ জমি ৪ থেকে ৫ বার চাষ এবং মই দিয়ে মাটি ঝুরঝুওে করে জমি তৈরি করে নিতে হবে।
বীজ থেকে চারা উৎপাদনঃ  বীজ থেকে চারা করার জন্য একটি ছোট পাত্র বা কাপে মাটি অথবা কোকোডাস্ট দিয়ে তাতে পরিমান মত  পানি  দিতে হবে। এর সাথে অল্প পরিমান কেচোসার বা ভার্মিকম্পোস্ট মিশানো উত্তম।  অতঃপর কিছু বীজ বপন করে দিতে হবে। আদ্রতা ধরে রাখার জন্য পাত্রটির মুখ এয়ার টাইট করে বন্ধ করে দিতে হবে।  ৭-১০ দিনের মধ্যে বীজ থেকে চারা গজাবে ইনশাল্লাহ।
সার প্রয়োগঃ টমেটোর ভাল ফলনের জন্য সার প্রয়োগ করতে হবে। গোবর বা কম্পোস্ট সার হেক্টও প্রতি ৫ থেকে ৭ টন। টিএসপি, ইউরিয়ার পরিবর্তে ডিএপি ৪০০ থেকে ৫০০ কেজি। এমপি ২০০ থেকে ৩০০ কেজি। তবে পুরো সিজনে ৩-৪ বার এমওপি প্রয়োগ করা ভাল।
পরিচর্যাঃ গাছের ১-১.৫ ফুট পর্যনৱ কোন ডাল রাখা যাবে না। পাশ্বকুশিসহ মরাপাতা ছাটাই করে দিতে হবে। যেহেতু এটি ক্লাইম্বিং টাইপ তাই মাচা করে দিতে হয়। প্রয়োজনে নিড়ানী দিতে হবে এবং মাটির উপরিভাগ আলগা করে দিতে হবে। ফলে আলো-বাতাস প্রবেশের সুবিধাসহ মাটি রস বেশিদিন ধরে রাখতে পারবে। ৪ থেকে ৬ বার সেচ প্রয়োজন অনুযায়ী দিতে হবে। তবে চারা লাগানোর ৩ থেকে ৪ দিন পর হালকা এবং পরবর্তীতে প্রতি কিসিৱ সার প্রয়োগের পর সেচ দিতে হবে।
পোকা দমনঃ  টমেটোর মূলত দুটি পোকা অধিকহাওে ৰতি করে থাকে। যথা- জাব পোকা ও ফল ছিদ্রকারী পোকা। জাব পোকা টমেটোর গাছের পাতা, কচি ডগা ও কান্ড থেকে রস শুষে খেয়ে গাছের ৰতি করে এবং গাছে মোজাইক রোগ ছড়ায়। এ পোকা দমনে ১০০০ লিটার পানির সাথে রগোর এল-৪০/ সাইফানন ৫৭ ইসি বা ক্লাসিক-২০ ইসি মিশিয়ে প্রতি হেক্টও জমিতে স্প্রে করতে হবে। অন্যদিকে ফল ছিদ্রকারী পোকার কীড়া টমেটো ছিদ্র করে ভেতরে ঢোকে এবং কুড়ে কুড়ে খায়, ফলে আক্রানৱ ফল খাওয়ার অনুপযুক্ত করে ফেলে। এ পোকা দমনের জন্য প্রথমত আকানৱ পাতা ও ফল সংগ্রহ করে নষ্ট করে ফেলতে হবে। যদি বেশি পরিমাণে আক্রানৱ হয় তবে ফরাটাপ বা কেয়ার-৫০ এসপি দুই গ্রাম হারে প্রতি লিটার পানির সাথে মিশিয়ে গাছের সমসৱ অংশ স্প্রে করতে হবে। তাছাড়াও বাইকাও-১ প্রয়োগ করে পোকা দমন করা যেতে পারে।
রোগ দমনঃ টমেটোর ঢলে পড়া রোগ লাল মাটিতে চাষ করলেণ বেশি পরিমাণে হতে পারে তাই চাষ করার আগে জমি নির্বাচনে সতর্ক হতে হবে এবং পরিমিত সেচ দিতে হবে। টমেটোর আগাম ধ্বসা রোগের ফলে গাছের পাতা এক সময় সম্পূর্ন শুকিয়ে যায় ফলে ফসলের মারাত্বক ৰতি হয়। তাই রোগমুক্ত বীজ ও চারা রোপন করতে হবে এবং প্রয়োজনে কৃষিবিদদের সাহায্য নিতে হবে। টমেটোর নাবী ধ্বসা রোগের কারণ ছত্রাক। এ রোগ অনেকটা আগাম ধ্বসা রোগের মত তাই একই রকম রোগ দমনে একই রকম ব্যবস’া গ্রহণ করা যেতে পারে। ভাইরাসের কারণে টমেটোর মোজাইক রোগ এবং বুশি স্টান্ট রোগে আক্রানৱ গাছ দেখামাত্র তুলে ধ্বংস করতে হবে এবং প্রয়োজনে কৃষিবিদদের পরামর্শ নিতে হবে।
টমেটোর শেকড়ের গিট রোগে হেক্টরপ্রতি ৬০ জি ফুরাফুরান বা কেয়ার ৪ কেজি প্রয়োগ করতে হবে।
ফসল সংগ্রহঃ চারা লাগানোর ৭৫ থেকে ৮০ দিনের মধ্যে চেরী টমেটোর ফল সংগ্রহ করা যায় এবং এপ্রিল মাস পর্যনৱ ফল সংগ্রহ করা যায়।
ফলনঃ হেক্টর প্রতি ফলন ৩০ থেকে ৪০ টন পর্যন্ত হয়।

Order Now

 

To find more garden seeds click here

  • Category : Food
  • Food Type : Vegetable

Leave a Review

Your email address will not be published. Required fields are marked *